১১০ জন পর্যটক কেবল কারে পড়েন আটকে

ফজলুল বারী, সাংবাদিকঃ দুর্গম বরফাচ্ছন্ন আল্পস পর্বতের ১২ হাজার ফুট উপরে সারারাত কেব্‌ল কারে ঝুলে রইলেন বেশ কয়েক জন পর্যটক। এর মধ্যে ছিল ১০ বছরে এক বালকও। জল, খাদ্য থাকলেও এত উঁচুতে অক্সিজেনের মাত্রা ছিল কম। অপেক্ষা করা ছাড়া সেখান থেকে বেরিয়ে আসার কোনও উপায় ছিল না তাঁদের। শ্বাসকষ্টে কিছু পর্যটকের অবস্থা তখন বেশ খারাপ। কিন্তু উপায় কী? হয়ত চোখের সামনে সহযাত্রীকে দেখতে হবে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়তে। তবে হাল ছাড়েননি তাঁরা। একে অন্যের প্রতি ভরসা রেখে সারা রাত তাকিয়ে ছিলেন কখন তাঁদের উদ্ধার করা হবে। ঘটনাটি ঘটে বৃহস্পতিবার স্থানীয় সময় বিকেল ৪টা নাগাদ। আল্পসের মন্ট ব্লাঁয়ে উঠতে গিয়ে মাঝপথে হঠাত্ই খারাপ হয়ে যায় কেব্‌ল কার। ১১০ জন পর্যটক আটকে পড়েন। এরপর যুদ্ধকালীন তত্পরতায় উদ্ধারকার্যে নেমে পড়ে ফ্রান্স, ইতালি এবং সুইত্জারল্যান্ডের উদ্ধারকারী দল। ৪টি হেলিকপ্টারের সাহায্যে ৬৭ জন পর্যটককে নিরাপদ স্থানে নিয়ে আসা হয়। কিন্তু উদ্ধারকার্যে বার বার বাধ সাধে প্রতিকূল পরিবেশ। বাকি ৩৩ জনের বেশি পর্যটককে সারা রাত কাটাতে হয় ওই ছোট্ট কেবল কারগুলিতে। অবশেষে সকাল ৬.৩০ টায় বাকি পর্যটকদের নিরাপদ স্থানে নিয়ে আসা হয়।-সূত্রঃ ফেইসবুক