সংসদ ভবন এলাকায় সর্বোচ্চ নিরাপত্তার তাগিদ

59

যুগবার্তা ডেস্কঃ সার্বিক আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে সংঙ্কিত হয়ে পড়েছেন জাতীয় সংসদের সদস্যরা। তাই যে কোন ধরনের নাশকতামূলক ঘটনা এড়াতে সংসদ সদস্যদের সরকারি বাসভবনে ন্যাম ফ্ল্যাটসহ সংসদ ভবন এলাকায় সর্বোচ্চ নিশ্চিত করার তাগিদ দিয়েছেন সংসদীয় কমিটি। কমিটির বৈঠকে সংসদ ভবন এলাকায় বেওয়ারিশ কুকুর তাড়াতে দ্রুত প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণের সুপারিশ করা হয়েছে।

আজ রবিবার বিকেলে জাতীয় সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত কমিটির বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন সংসদ কমিটির সভাপতি চিফ হুইপ আ স ম ফিরোজ। বৈঠকে কমিটির সদস্য মো. তাজুল ইসলমা চৌধুরী, বেগম সাগুফতা ইয়াসমিন, পঞ্চানন বিশ্বাস, ফজলে হোসেন বাদশা ও তালুকদার মো. ইউনুস এবং সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

বৈঠক শেষে চিফ হুইপ আ স ম ফিরোজ সাংবাদিকদের বলেন, বৈঠকে সার্বিক নিরাপত্তা নিয়ে আলোচনা হয়েছে। সেখানে সংসদ সদস্যরা সংসদ ভবন এলাকায় ‘ওয়েল প্রোটেক্টশন’ (সর্বোচ্চ নিরাপত্তা) নিশ্চিত করার কথা বলেছে। কমিটির পক্ষ থেকে নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে ৭০ জন আনসার সদস্যকে সার্বক্ষণিক দায়িত্বে রাখার জন্য বলা হয়েছে। তিনি আরো বলেন, নিরাপত্তার স্বার্থে এমপিদের গেস্ট (অতিথি) আগমনের ক্ষেত্রে একটু কড়াকড়ি আরোপের কথা বলা হয়েছে। কেননা এখানে অনেকেই আসেন। কে কোন ফাঁকে ঢুকে, কি ঘটিয়ে যায় সেটাতো আর বলা যায় না। তাই সবাইকে সর্তক করা হয়েছে।

কমিটি সূত্র জানায়, বৈঠকে চট্টগ্রামে পুলিশ সুপার (এসপি) বাবুল আক্তারের স্ত্রী হত্যাকাণ্ডসহ সাম্প্রতিক সময়ে কিছু হত্যাকাণ্ড নিয়ে আলোচনা হয়। কেউ কেউ ভিআইপিদের ওপর হামলার আশঙ্কাও প্রকাশ করেন। এজন্য ন্যাম ফ্ল্যাটসহ নাখালপাড়াস্থ এমপি হোস্টেলের নিরাপত্তা জোরদারের জন্য বলা হয়। এছাড়া বেওয়ারিশ কুকুরের উপদ্রব থেকে রক্ষায় পদক্ষেপ গ্রহণের দাবি জানান কমিটির সদস্যরা।

সূত্র আরো জানায়, বৈঠকে মানিক মিয়া এভিনিউ ও নাখালপাড়াস্থ সংসদ সদস্য ভবনের ফ্ল্যাটে বসবাসকৃত সংসদ সদস্যদের জন্য চাহিদার ভিত্তিতে পর্যায়ক্রমে একটি রিডিং টেবিল, একটি চেয়ার ও একটি বুক সেলফ সরবরাহের বিষয়টি তরান্বিত করার সুপারিশ করা হয়। আর সংসদ-সদস্যগণের ব্যক্তিগত পর্যায়ে টিভি-ফ্রিজ ক্রয় ও রক্ষণাবেক্ষণের জন্য বলা হয়। এছাড়া সংসদ সদস্য ভবনে গণপূর্ত বিভাগের নিয়োজিত কর্মচারীদের নির্দিষ্ট পোষাক সরবরাহের সুপারিশ করা হয়।