মুক্তিযুদ্ধের বাংলায় সংখ্যালঘুরা এখন চরম নিরাপত্তাহীন-সিপিবি

যুগবার্তা ডেস্কঃ বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি)’র কেন্দ্রীয় কমিটির উপদেষ্টা কমরেড মনজুরুল আহসান খান বলেছেন, সে স্বপ্ন ও আকাক্ষা নিয়ে আমরা ’৭১-এ মুক্তিযুদ্ধ করেছিলাম, সেই স্বপ্ন ও আকাক্ষা থেকে বাংলাদেশ ক্রমশ দূরে সরে গেছে। ‘ধর্মনিরপেক্ষতা’কে রাষ্ট্রীয় নীতি থেকে কার্যত সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। সংখ্যালঘুদের ওপর একের পর এক হামলা হচ্ছে। কিন্তু কোনো হামলারই বিচার হচ্ছে না। অপরাধীরা পার পেয়ে যাচ্ছে। মুক্তিযুদ্ধের বাংলায় সংখ্যালঘুরা এখন চরম নিরাপত্তাহীন।
ব্রাহ্মণবাড়িয়াসহ সারাদেশ সংখ্যালঘুদের ওপর সহিংসতার প্রতিবাদে আজ ৮ নভেম্বর আক্রান্ত নাসিরনগরে সিপিবি আয়োজিত জনসভায় কমরেড মনজুর এসব কথা বলেন। নাসিরনগর শহীদ মিনারে সিপিবি নেতা মহেন্দ্র চন্দ্র দাশের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ জনসভায় কমরেড মনজুর ছাড়া আরো বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য মণ্টু ঘোষ, আবদুলøাহ ক্বাফী রতন, শাহরিয়ার মো. ফিরোজ, সিপিবি’র ব্রাহ্মণবাড়িয়া ও নাসিরনগরের নেতা সাজিদুল ইসলাম, সৈয়দ মো. জামাল, দেবদাস সিংহ রায়, ঈশা খান, ইন্দ্রজিৎ দাশ, সুমন চৌধুরী প্রমুখ।
জনসভায় কমরেড মনজুর আরো বলেন, ৩০ অক্টোবরের সহিংসতার পর আবারো কয়েক দফা কী করে নাসিরনগরে হামলা হয়? সরকারকে এর জবাব দিতে হবে। সরকার সাম্প্রদায়িক অপশক্তি মোকাবেলায় দায়িত্বশীল ভ‚মিকা পালন করছে না। সরকারের ওপর ভর না করে সাম্প্রদায়িকতার বিরুদ্ধে জনগণকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে, প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে।
তিনি আক্রান্ত সংখ্যালঘুদের জীবনের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার দাবি জানান। একই সাথে তিনি সাম্প্রদায়িক রাজনীতি ও সাম্প্রদায়িক রাজনৈতিক দল নিষিদ্ধ ও হামলাকারীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান।
তিনি ১৫-৩০ নভেম্বর সারাদেশে ‘সাম্প্রদায়িকতাবিরোধী প্রচার ও প্রতিরোধ পক্ষ পালন করার জন্য দেশবাসীর প্রতি আহ্বান জানান।