মিরপুরে বুদ্ধিজীবী গোরস্থানে স্ত্রী’র পাশে শায়িত আবদুল গাফফার চৌধুরী

কাজী শাহীন : বিশিষ্ট সাংবাদিক, কলামিস্ট ও ভাষা আন্দোলনের স্মৃতিবিজড়িত অমর গান ‘আমার ভাইয়ের রক্তে রাঙানো একুশে ফেব্রুয়ারি’ এর রচয়িতা আবদুল গাফফার চৌধুরীকে রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় মিরপুর শহীদ বুদ্ধিজীবী গোরস্থানে তার স্ত্রী’র পাশে চির শায়িত করা হয়েছে। তার আগে ফুলের শ্রদ্ধা ও জানাজা অনুষ্ঠিত হয়।
আজ বেলা ১১টায় বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের একটি ফ্লাইটে তাঁর মরদেহ হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছলে সরকারের পক্ষে তাঁর মরদেহ গ্রহণ করেন মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক।

এর পরে বেলা দেড়টায় জাতীয় শহিদ মিনারে গার্ড অভ অনার প্রদান এবং শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য রাখা হয়।এখানে রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে শ্রদ্ধআ জানানো শেষে জনসাধারণের শ্রদ্ধা জানানেনার জন্য উন্মুক্ত করে দেওয়া হয়।এ সময় বিভিন্ন রাজনৈতিক ও সামাজিক সংগঠন শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

বিকেল সাড়ে ৩ টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় মসজিদে জানাজার পর বিকেল ৪টায় মরদেহ জাতীয় প্রেসক্লাবে শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য আনা হয়।সেখানে জানাজা শেষে সাংবাদিকবৃন্দসহ বিভিন্ন পর্যায়ের সংগঠন শ্রদ্ধা জানান।

বিকেল সাড়ে ৫ টায় গাফফার চৌধুরীর মরদেহ মিরপুর শহিদ বুদ্ধিজীবী কবরস্থানে তদার স্ত্রী’র পাশে সমাহিত করা হয়।

আবদুল গাফফার চৌধুরী গত ১৯ মে লন্ডনের একটি হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। তাঁর বয়স হয়েছিল ৮৮ বছর।
১৯৩৪ সালে বরিশাল জেলার উলানিয়া গ্রামের চৌধুরী বাড়িতে জন্মগ্রহণ করেন আবদুল গাফফার চৌধুরী। তাঁর বাবা হাজি ওয়াহিদ রেজা চৌধুরী ও মা জহুরা খাতুন।