মালয়েশিয়ায় অভিযানে ১০০ বাংলাদেশি আটক

71

মালয়েশিয়ার রাজধানী কুয়ালালামপুরে অভিবাসন পুলিশের অভিযানে কমপক্ষে ১০০ বাংলাদেশিসহ তিন শতাধিক অভিবাসীকে আটক করা হয়েছে।
স্থানীয় সময় শুক্রবার দুপুর ১২টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত এ অভিযান চালানো হয়।
আটক বাংলাদেশিদের মধ্যে কয়েকজনের পরিচয় পাওয়া গেছে। তাঁরা হলেন—লক্ষ্মীপুরের রাজীব, কক্সবাজারের জাহিদ হাসান, ময়মনসিংহের আবদুল আউয়াল ও চট্টগ্রামের রানা।
খোঁজ নিয়ে জানা যায়, কুয়ালালামপুরে বুকিত বিন্তানে সবচেয়ে বড় ইলেকট্রনিক মার্কেট লয়াত প্লাজা, সুঙ্গাই ওয়ান, টাইমস স্কয়ার এলাকায় অবৈধ অভিবাসীদের আটক করতে বড় ধরনের অভিযান চালায় পুলিশ। সেই অভিযানে বাংলাদেশ, নেপাল, পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কা, ভিয়েতনাম , ইন্দোনেশিয়া ও ফিলিপাইনের নাগরিকদের আটক করা হয়। আটক অভিবাসীদের মধ্যে অনেক নারী রয়েছে।
অভিযানের বিষয়ে লয়াত প্লাজায় কর্মরত কুমিল্লার মোহাম্মদ মনির হোসেন এনটিভি অনলাইনকে বলেন, ‘আমি তিন বছর ধরে লয়াত প্লাজা কাজ করি। লয়াত প্লাজা হলো এশিয়ার সেরা ইলেক্ট্রনিক মার্কেট। এখানে প্রতিদিন হাজার হাজার পর্যটক আসে ইলেক্ট্রনিক সামগ্রিক কেনাকাটা করতে। এই বারের অভিযান ছিল খুবই ভয়াবহ।’
‘প্রথমে পুলিশ এসে লয়াত প্লাজা গেট বন্ধ করে দেয়। প্রথম তলা থেকে ৪ তলা পর্যন্ত অভিযান চালায়। তখন বিদেশিদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে।’
মালয়েশিয়া প্রবাসী সাংবাদিক গৌতম রায় এনটিভি অনলাইনকে বলেন, ‘এ পর্যন্ত খবর পেলাম সাতটি গাড়ি পরিপূর্ণ করা হয়েছে। আনুমানিক তিনশর বেশি বিদেশি আটক করা হয়েছে। তাদের মধ্যে উল্লেখযোগ্যসংখ্যক বাংলাদেশি রয়েছে।’