মধ্যম আয়ের দেশ গড়তে হলে ভ্যাটের বিকল্প নেই : ভূমিমন্ত্রী

রাজশাহী অফিস : ভূমিমন্ত্রী শামসুর রহমান শরীফ বলেছেন, ‘২০২১ সালের মধ্যে মধ্যম আয়ের বাংলাদেশ গড়তে হলে ভ্যাটের বিকল্প নেই। এখন জাতীয় আয়ের ৮৬ ভাগ আসে ভ্যাট থেকে। ভ্যাটের পরিমাণ বৃদ্ধি না করলেও ভ্যাট প্রদানের হার বাড়াতে হবে। তাহলেই নির্ধারিত সময়ের মধ্যে দেশ মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হবে।’

শনিবার দুপুরে রাজশাহী মেডিকেল কলেজের ডা. কাইছার রহমান চৌধুরী অডিটোরিয়ামে জাতীয় ভ্যাট দিবস ও সপ্তাহের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী এ কথা বলেন। রাজশাহীর কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট কমিশনারেট এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

মন্ত্রী বলেন, ‘আমরা কোনো কিছুর বিনিময়ে এ দেশ পাইনি। যুদ্ধ করে দেশকে অর্জন করতে হয়েছে। তাই দেশকে উন্নয়নের শিখরে আমাদেরকেই নিয়ে যেতে হবে। এ জন্য ভ্যাট দিতে হবে। এই টাকায় দেশের অবকাঠামো নির্মাণ হবে। এর জন্য কারও মুখাপেক্ষি হওয়া যাবে না। আমরা নিজেদের টাকায় পদ্মা সেতু করতে পারলে, আরও বড় বড় প্রকল্পের কাজ করতে পারবো।’

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন রাজশাহীর কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট কমিশনারেটরের কমিশনার মোয়াজ্জেম হোসেন। স্বগত বক্তব্য দেন, অতিরিক্ত কমিশনার একেএম মাহবুবুর রহমান।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) সদস্য ড. মাহবুবুর রহমান, অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার মুনির হোসেন, পুলিশের রাজশাহী রেঞ্জের অতিরিক্ত ডিআইজি মাসুদুর রহমান ভুঁইয়া, রাজশাহী মহানগর পুলিশের (আরএমপি) অতিরিক্ত কমিশনার সরদার তমিজ উদ্দিন আহমেদ, রাজশাহী কর অঞ্চলের কমিশনার দবির উদ্দিন ও রাজশাহী চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি মনিরুজ্জামান মনি।

অনুষ্ঠান শেষে সর্বোচ্চ মূল্য সংযোজন করদাতা (মূসক) হিসেবে রাজশাহী বিভাগের ৮ জেলার ১৮টি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে ক্রেস্ট দিয়ে সম্মাননা জানানো হয়। এর আগে সকালে রাজশাহী মহানগরীর উপশহরে কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট কমিশনারেটরের কার্যালয় থেকে একটি বর্ণাঢ্য র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালিটি বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে অনুষ্ঠানস্থলে গিয়ে শেষ হয়।

রাজশাহী বিভাগের যেসব প্রতিষ্ঠান সম্মাননা পেল রাজশাহীর এসআর ইন্ডাস্ট্রি লিমিটেড, বগুড়ার আজাদ পাল্প অ্যান্ড পেপার মিলস, চাঁপাইনবাবগঞ্জের আকিজ এগ্রো প্রসেসিং ফ্যাক্টরি, নাটোর এগ্রো লিমিটেড, পাবনার স্কয়ার ফার্মাসিউটিক্যালস, রাজশাহী, বগুড়া, পাবনা, সিরাজগঞ্জ, চাঁপাইনবাবগঞ্জ ও নাটোরের ওয়ালটন প্লাজা, জয়পুরহাটের আরাফাত ট্রেডিং, রাজশাহী মিষ্টি বাড়ি, বগুড়ার এশিয়া সুইটমিট, চাঁপাইনবাবগঞ্জের নবাব মিষ্টান্ন ভান্ডার, নাটোর টাউন প্রেস, জয়পুরহাটের হোটেল স্বাদ ও পাবনার ইয়াকুব অটো সার্ভিস সেন্টার। ভূমিমন্ত্রী শামসুর রহমান শরীফ এসব প্রতিষ্ঠানের মালিক ও প্রতিনিধিদের হাতে সম্মাননা ক্রেস্ট তুলে দেন।