বরিশালে ওয়ার্কার্স পার্টি দুই প্রার্থী জয়ী

বরিশাল অফিসঃ র‌্যাব, পুলিশ, ডিবি, বিজিবি ও আনসার ভিডিপির কড়া নিরাপত্তার মধ্যদিয়ে বাবুগঞ্জের ২টি স্থগিত কেন্দ্রের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। কেন্দ্র দুইটি হল রহমতপুর ইউনিয়নের বহুল আলোচিত রামপট্রি (মহিষাদি) কেন্দ্র ও চাঁদপাশা ইউনিয়নের ভবানিপুর কেন্দ্র । দুইটি কেন্দ্রেই কোন অপ্রতিকর ঘটনা ছাড়াই কঠোর নিরপত্তার মধ্য দিয়ে সকাল ৮ থেকে বিকাল ৪ টা পর্যন্ত বিরতিহীন ভাবে ভোট গ্রহণ সম্পন্ন হয়। রহমতপুর ইউনিয়নের রামপট্রি কেন্দ্রে মোট ১৬৯৮ জন ভোটারের মধ্যে ১২৪৭ জন ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রদান করেন। এর মধ্যে (নৌকা) প্রতিক নিয়ে অক্তার-উজ-জামান মিলন ৭৩১ ভোট ও প্রতিদন্ধি ওয়াকার্স পার্টির সমার্থীত প্রার্থী সরোয়ার মাহমুদ (আনারস) প্রতিক নিয়ে ৪৮৯ ভোট পায় । গত ২২ শে মার্চ অনুষ্ঠিতাব্য নির্বাচিত সরোয়ার মাহমুদ ( আনারস) প্রতিকে নিয়ে ৩৪১ ভোটে এগিয়ে ছিল। রহমতপুর ইউনিয়নের মোট ১৭৬৩৯ টি ভোটের মধ্যে ওয়াকার্স পার্টির সমার্থীত প্রার্থী সরোয়ার মাহমুদ ৩৮৬৪ টি ভোট পায়। প্রতিদন্ধি প্রার্থী মোট ভোটের ৩৭৬৫ টি ভোট পায়। সে হিসাবে সরোয়ার মাহমুদ প্রতিদন্ধি প্রার্থী আক্তার উজ জামান মিলনের চেয়ে ৯৯ ভোট বেশি পেয়ে রহমতপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছে। এদিকে চাঁদপাশা ইউনিয়নের ভবানিপুর স্থাগিত কেন্দ্রের মোট ৯০০ জন ভোটারের মধ্যে ৭৪৪ জন ভোট প্রয়োগ করেন। এই কেন্দ্রে ওয়াকার্স পার্টির প্রার্থী মোঃ আনচুর রহমান সবুজ (হাতুরি) প্রতিক নিয়ে ৬৫৫ টি ভোট পায়। আ’লীগ মনোনিত প্রার্থী মোকবুল হোসেন নৌকা প্রতিক নিয়ে পায় মাত্র ৩৯ ভোট। চাদপাশা ইউনিয়নের মোট ১৯১৫০ টি ভোটের মধ্যে (হাতুরি) প্রতিক নিয়ে ওয়ার্কাস পার্টির মনোনিত প্রার্থী আনিচুর রহমান সবুজ ৪১৭১ টি ভোট পায়। প্রতিদন্ধি প্রার্থী নৌকা প্রতিক নিয়ে ৩০৯০ টি ভোট পায়। আনিচুর রহমান সবুজ প্রতিদন্ধি প্রার্থীর চেয়ে ১০৮১ ভোট বেশি পেয়ে চাঁদপাশা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়। রহমতপুর ইউনিয়নের স্থাগিত কেন্দ্র রামপট্রি আলোচিত হওয়ায় সকাল থেকেই প্রশাসনের উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ পরিদর্শন করেন। কেন্দ্র টি পরিদর্শন করেন জেলা প্রশাসক ড.গাজী মোঃ সাইফুজ্জামান, ডিসি নর্থ মোঃ হাবিবুর রহমান, ডিএম ডি জাকির হোসেন, পুলিশ কমিশনার (বি এম পি) এস এম রুহুল আমিন, র‌্যাব -৮ এর সিও ল্যাফটেন্যান্ট কর্নেল ইফতেখার মাহমুদ (পি এস সি)। এছাড়া ও সার্বক্ষনিক নির্বাহী মেজিস্ট্রেট এর দায়িত্ব পালন করেন আশ্রাফুল ইসলাম জুপিটার। বাবুগঞ্জে সুষ্ঠ ও নিরাপক্ষ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ায় সর্বস্তরের জনগনের প্রসংশা কুরান উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা অফরোজা বেগম পারুল ও উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা আব্দুল হাই আল -হাদি ।