বন্দর ও সুন্দরবন রক্ষায় লিয়াকত আলীর অবদান মংলাবাসী মনে রাখবে

135

মংলা অফিসঃ মংলা বন্দর ও সুন্দরবন রক্ষার সংগ্রামে আলহাজ্ব লিয়াকত আলীর অবদান মংলাবাসী মনে রাখবে। দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের উন্নয়ন ব্যক্তিত্ব হিসেবে এ জনপদের মানুষের হৃদয়ে তিনি চির জাগ্রত থাকবেন। উন্নয়ন সাংবাদিকতার দৃষ্টাšত হিসেবে ভবিষ্যতে প্রয়াত লিয়াকত আলী গণমাধ্যম কর্মীদের পথ দেখাবেন এবং একই সাথে দক্ষিণ জনপদের মানুষের কাছে স্মরণীয়-বরনীয় হয়ে থাকবেন। মঙ্গলবার বিকেলে মংলা প্রেসক্লাব চত্বরে নাগরিক সমাজের আয়োজনে শোক সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় আলহাজ্ব তালুকদার আব্দুল খালেক এমপি এ কথা বলেন।

মঙ্গলবার বিকেল ৩ টায় অনুষ্ঠিত নাগরিক শোক সভায় সভাপতিত্ব করেন মংলা নাগরিক সমাজের সভাপতি সাংবাদিক মোঃ নূর আলম শেখ। শোক সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন উপজেলা চেয়ারম্যান আবু তাহের হ্ওালাদার,সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ ইদ্রিস আলী ইজারদার, উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মিসেস কামরুন্নাহার হাই, খুলনা প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি ফারুক আহমেদ আহমেদ, সাবেক সাধারন সম্পাদক মোঃ সাহেব আলী, মংলা প্রেসক্লাবের সভাপতি এইচ এম দুলাল ্ও মংলা থানা অফিসার ইনচার্জ শেখ লুৎফর রহমান। শোক সভায় অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন পৌর আ্ওয়ামীলীগের সভাপতি মোঃ শাজাহান শিকারী, সাধারন সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা সেখ আব্দুর রহমান, সাবেক পৌর চেয়ারম্যান সেখ আব্দুস সালাম, অধ্যক্ষ মোঃ গোলাম সরোয়ার, সাংবাদিক এম এ মোতালেব, সাংবাদিক এইচ এম আলাউদ্দিন, হাফেজ ম্ওালানা অধ্যক্ষ রুহুল আমীন, মংলা প্রেসক্লাবের সাধারন সম্পাদক মোঃ হাসান গাজী, মংলা নাগরিক সমাজের তানজীম হোসেন মুকুল, নাজমুল হক, সার্ভিস বাংলাদেশ’র সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমান মিলন প্রমূখ । শোক সভার শুরুতেই প্রয়াত আলহাজ্ব লিয়াকত আলীর স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে এক মিনিট নিরাবতা পালন করা হয়। শোক সভা শেষে মরহুমের আত্মার মাগফিরাত কামনা করে দোয়া-মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়। দোয়া-মোনাজাত পরিচালনা করেন হাফেজ ম্ওালানা রুহুল আমীন।