নজরদারিতে সন্দেহজনক ফেসবুক আইডি ‘আইএস কুয়াকাটা’

57

যুগবার্তা ডেস্কঃ সমুদ্র সৈকত কুয়াকাটা’র নাম ভাঙিয়ে একটি সন্দেহজনক ফেসবুক আইডি’র সন্ধান পেয়েছে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী।
‘আইএস কুয়াকাটা’ নামের ওই আইডিতে ব্যবহার করা হয়েছে গুলশান হামলায় নিহত এক জঙ্গির ছবি এবং আপলোড করা হয়েছে স্পর্শকাতর বিভিন্ন পোস্ট। সম্প্রতি খোলা ওই আইডি’র ফেন্ড লিস্ট বা বন্ধু তালিকাতেও পাওয়া গেছে ১১শ’ ৫৭ জনের নাম। বিষয়টি খতিয়ে দেখছে পটুয়াখালী জেলা পুলিশ প্রশাসন।
জেলা পুলিশ জানিয়েছে, বিষয়টি সম্পর্কে অবগত হয়ে এর উৎস অনুসন্ধান করছে পুলিশ। এরই মধ্যে বিষয়টি সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য জানতে ঢাকায় দাপ্তরিকভাবে আইটি বিশেষজ্ঞদের জানানো হয়েছে।
আইডিটিতে ঢুকে দেখা গেছে, এতে প্রথম পোস্টটি আপলোড করা হয়েছে চলতি বছরের ২৩ জুন। তাই পুলিশের ধারণা, এ আইডিটি ওই তারিখেই বা এর কয়েকদিন আগে খোলা হয়েছে। তবে ঠিকানাসহ এর বেশিরভাগ তথ্য গোপন রাখা হয়েছে। তবে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ঘরে লেখা হয়েছে মহিপুর কো-অপারেটিভ হাইস্কুলের নাম। এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটি পটুয়াখালীর মহিপুর থানায় কুয়াকাটা সংলগ্ন স্থানে অবস্থিত হওয়ায় সেখানেও খোঁজ নিয়েছে পুলিশ। তবে তেমন কিছু জানা যায়নি।
ওই আইডিতে ঢুকে বেশ কিছু পোস্ট দেখা গেছে। এর মধ্যে রয়েছে ‘ব্রেইন ওয়াশ আমরা করি না, আমরাতো শুধু আপনাদের আল্লাহর দিকে ডাকি’, ‘কুফফারদের রক্ত ঝড়ানোর ব্যাপারে উলামাদের ইজমা’, ‘মুজাহিদের ফিটনেস প্রশিক্ষণ’ ইত্যাদি।
এ বিষয়ে মহিপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মাকুসুদুর রহমান জানান, বিষয়টি সম্পর্কে আমরা অবহিত আছি। খতিয়ে দেখে দ্রুত প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেবো। এ বিষয়ে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে।
কুয়াকাটায় কোনও জঙ্গি গোষ্ঠীর তৎপরতা বা নজরদারি রয়েছে কিনা সেটি দ্রুত প্রশাসনের আইটি বিশেষজ্ঞদের খতিয়ে দেখা দরকার।
কুয়াকাটায় কোনও জঙ্গি গোষ্ঠীর তৎপরতা আছে কিনা তা খতিয়ে দেখা জরুরি বলে মন্তব্য করেছেন কুয়াকাটা পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পৌরসভার মেয়র আব্দুল বারেক মোল্লা। তিনি জানান, আমরা সতর্ক আছি।
এদিকে, ফেসবুকে এমন একটি আইডি’র সন্ধান পাওয়ার বিষয়টি স্বীকার করেছেন পটুয়াখালী পুলিশ সুপার সৈয়দ মোসফিকুর রহমান। তিনি জানান, বিষয়টি আমরা দেখছি।