দেশ বরেণ্য শিক্ষাবিদ, এমিরেটাস অধ্যাপক সিরাজুল ইসলাম চৌধুরীর নামে মামলা দায়েরের নিন্দা

ডেস্ক রিপোর্ট: বাম গণতান্ত্রিক জোট কেন্দ্রীয় পরিচালনা পরিষদের সমন্বয়ক ও বাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য কমরেড বজলুর রশীদ ফিরোজ ও জোটের কেন্দ্রীয় শীর্ষ নেতা সিপিবি’র সভাপতি কমরেড মুজহাদিুল ইসলাম সেলিম, সাধারণ সম্পাদক কমরেড শাহ আলম, বাসদের সাধারণ সম্পাদক কমরেড খালেকুজ্জামান, বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক কমরেড সাইফুল হক, গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক জোনায়েদ সাকি, বাংলাদেশ ইউনাইটেড কমিউনিস্ট লীগের সাধারণ সম্পাদক কমরেড মোশাররফ হোসেন নান্নু, গণতান্ত্রিক বিপ্লবী পার্টির সাধারণ সম্পাদক কমরেড মোশরেফা শিশু, ওয়ার্কার্স পার্টি (মার্কসবাদী) সাধারণ সম্পাদক কমরেড ইকবাল কবীর জাহিদ, বাসদ (মার্কসবাদী) ভারপ্রাপ্ত সমন্বয়ক কমরেড ফখরুদ্দিন কবীর আতিক ও সমাজতান্ত্রিক আন্দোলনের সভাপতি কমরেড হামিদুল হক আজ ২০ অক্টোবর সংবাদপত্রে দেয়া এক যুক্ত বিবৃতিতে দেশ বরেণ্য শিক্ষাবিদ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এমিরেটাস অধ্যাপক সিরাজুল ইসলাম চৌধুরীসহ তিন জন লেখকের বিরুদ্ধে হয়রানীমূলক মিথ্যা মামলা দায়ের করার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন।
বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ বলেন, বরেণ্য ব্যক্তিবর্গ, লেখকদের নামে মামলা দিয়ে সরকার মুক্তিবুদ্ধি, চিন্তা ও বাকস্বাধীনতার উপর নগ্ন হস্তক্ষেপের বহিপ্রকাশ ঘটিয়েছে।
বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ বলেন, গণবিচ্ছিন্ন সরকার এখন গাছে পাতা পড়লেও ভয়ে চমকে উঠছে। ফলে মানুষের কথা বলার অধিকার কেড়ে নেয়ায় তৎপর রয়েছে।
নেতৃবৃন্দ বলেন, বর্তমান সরকার ফ্যাসিবাদী শাসন টিকিয়ে রাখতেই মুক্ত চিন্তার মানুষের নামে মামলা দিয়ে হয়রানী করছে।
বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ অধ্যাপক সিরাজুল ইসলাম চৌধুরীসহ ৩ জনের নামে দায়েরকৃত হয়রানীমূলক মামলা প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছেন।