টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের চ্যাম্পিয়ন দল পাবে ১৬ কোটি টাকা

ডেস্ক রিপোর্ট: টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের চ্যাম্পিয়ন দল পাবে বাংলাদেশী মুদ্রায় (এক ডলার ১০০ টাকা হিসেবে) ১৬ কোটি টাকা। ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি) আজ আসন্ন টুর্নামেন্টের প্রাইজ মানি ঘোষণা করেছে।
সব মিলিয়ে আসন্ন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে মোট প্রাইজমানির পরিমাণ ৫ দশমিক ৬ মিলিয়ন ডলার। যা বাংলাদেশি মুদ্রায় ৫৬ কোটি টাকার কিছু বেশেী । গত আসরেও সম পরিমান প্রাইজমানি দিয়েছে আইসিসি।
অষ্টম আসরের চ্যাম্পিয়ন দল পাবে ১৬ লাখ ডলার। যা বাংলাদেশি মুদ্রায় ১৬ কোটি টাকার টাকা।
রানার্স-আপ দল পাবে চ্যাম্পিয়নের চেয়ে অর্ধেক, ৮ লাখ ডলার। যা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ৮ কোটি টাকা ।
৪৫ ম্যাচের এই টুর্নামেন্টে সেমিফাইনালে উঠা চার দলের মধ্যে হেরে যাওয়া দুই দল পাবে ৪ লাখ ডলার করে। অর্থাৎ প্রায় ৪ কোটি টাকা করে।
সুপার টুয়েলভে প্রতিটি ম্যাচে জয়ের জন্য থাকছে ৪০ হাজার ডলার করে। অর্থাৎ ৪০ লাখ টাকা করে।
সুপার টুয়েলভ থেকে বিদায় নেয়া দল পাবে ৭০ হাজার ডলার করে। যা প্রায় ৭০ লাখ টাকা। এবারের বিশ্বকাপে সরাসির সুপার টুয়েলভে খেলবে বাংলাদেশ। তাই সুপার টুয়েলভে থেকে বিদায় নিলেও, বিশ্বকাপ থেকে ৭০ লাখ টাকা পাবে বাংলাদেশ।
প্রথম রাউন্ডে জয়ের জন্য প্রত্যক দল পাবে ৪০ হাজার ডলার বা ৪০ লাখ টাকা। প্রথম রাউন্ড থেকে বাদ পড়া চার দল পাবে ৪০ হাজার ডলার করে।
আটটি দলকে নিয়ে হবে প্রথম রাউন্ড। প্রথম রাউন্ডের ‘এ’ গ্রুপে আছে শ্রীলংকা-নামিবিয়া, নেদারল্যান্ডস ও সংযুক্ত আরব আমিরাত। ‘বি’ গ্রুপে থাকছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ-স্কটল্যান্ড-আয়ারল্যান্ড ও জিম্বাবুয়ে।
দুই গ্রুপের শীর্ষ দু’টি করে সুপার টুয়েলভে খেলবে। ইতোমধ্যে সুপার টুয়েলভ নিশ্চিত করেছে মোট ৮টি দল।
সুপার টুয়েলভে গ্রুপ-১এ আছে ইংল্যান্ড-নিউজিল্যান্ড-অস্ট্রেলিয়া ও আফগানিস্তান। আর গ্রুপ-২এ আছে বাংলাদেশ, ভারত, পাকিস্তান ও দক্ষিণ আফ্রিকা।
১৬ অক্টোবর থেকে শুরু হবে প্রথম রাউন্ড। ২২ অক্টোবর থেকে শুরু হবে সুপার টুয়েলভ।
টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রাইজ মানি (ডলার) :
চ্যাম্পিয়ন দল – ১,৬০০,০০০
রানার্স-আপ দল – ৮০০০০০
সেমিফাইনালে হেরে যাওয়া দল – ৪০০০০০
সুপার টুয়েলভে প্রতি ম্যাচ জয় – ৪০০০০
সুপার টুয়েলভ থেকে বিদায় নেওয়া দল – ৭০০০০
প্রথম রাউন্ডে প্রতি ম্যাচে জয়- ৪০০০০
প্রথম রাউন্ড থেকে বিদায় নেওয়া দল – ৪০০০০