গণতন্ত্র পুনঃ উদ্ধারে ঢাকার মাটিতে শীঘ্রই আরেকটি গণঅভ্যুত্থান সৃষ্টি হবে–আমান উল্লাহ আমান

স্টাফ রিপোটার: বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ডাকসুর সাবেক ভিপি ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির আহবায়ক আমান উল্লাহ আমান বলেছেন, ৯০ এর স্বৈরাচার বিরোধী গণআন্দোলনে অনেকের রক্তের বিনিময়ে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার আপোষহীন নেতৃত্বের মধ্য দিয়ে আমরা পেয়েছিলাম গণতন্ত্র। সেই গণতন্ত্র আজ ভূলন্ঠিত। মানবাধিকার ভূলুণ্ঠিত। আজকে দেশের জনগণের ভোটাধিকার নেই। সেই ভোটাধিকার প্রতিষ্ঠার জন্যে, গণতন্ত্র পুনঃ উদ্ধারে জন্যে এই বাংলাদেশে, এই ঢাকার মাটিতে শীঘ্রই আরেকটি গণঅভ্যুত্থান সৃষ্টি হবে। এবং সেই গণঅভ্যুত্থানের মধ্য দিয়ে এই অবৈধ, ভোট চোর, ভোট ডাকাত, নিশিরাতের আওয়ামী সরকারের পতন হবে। এবং নির্দলীয় নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকার গঠন হবে, তারপর হবে নির্বাচন। জনগণ তার পছন্দের প্রার্থীকে ভোট দিলে বিএনপিই আগামীতে সরকার গঠন করবে। ইনশাআল্লাহ।

আজ ২ রা জুলাই শবিবার সকাল ১১ টায় ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির মোহাম্মদপুর থানাধীন ২৯, ৩১,৩২,৩৩,৩৪ নম্বর ওয়ার্ড বিএনপির সন্মেলন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আমান উল্লাহ আমান এসব কথা বলেন।

মোহাম্মদপুর থানা বিএনপি নেতা এম এস আহমাদ আলীর সার্বিক তত্ত্বাবধানে মোহাম্মদপুর বছিলা রোড নীরা কমিউনিটি সেন্টারে আয়োজিত সন্মেলনে আমান উল্লাহ আমান বলেন, বন্যাকবলিত এলাকায় মানুষের মধ্যে খাবার নেই। হাহাকার চলছে মানুষের মধ্যে। অথচ এ আওয়ামী সরকার দেশের ভানবাসী মানুষের দিকে নজর দিচ্ছে না। সরকারের কাছ থেকে কোন আশানুরূপ এান যাচ্ছে না।

দলীয় নেতা-কর্মীদের উদ্দেশে আমান উল্লাহ আমান বলেন, অবৈধ ও নিশিরাতের আওয়ামী সরকারকে হঠাতে গণআন্দোলনের জন্য যেকোন সময় ডাক আসতে পারে তার জন্য সকলকে পস্তুত থাকারও আহবান জানান তিনি।

প্রধান বক্তার বক্তব্যে ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির সদস্য সচিব বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক আমিনুল হক বলেন, যে স্বাধীনতার জন্য মহান বীরযুদ্ধারা স্বাধীনতার যুদ্ধ করেছিলেন। সেই স্বাধীনতা আজকে বাংলাদেশে নেই। আজকে অবৈধ সরকার, ভোটারবিহীন সরকার এই নিশিরাতের সরকার গত ১৪ বছর ধরে বাংলাদেশের মানুষের ওপরে যেভাবে চাপ প্রয়োগ করে নিজদের ক্ষমতা কুক্ষিগত করে রাখার জন্য বাংলাদেশের মানুষের সার্বভৌমত্বের বাংলাদেশের জনগণের মৌলিক চাহিদা, বাংলাদেশের মানুষের ভোটের অধিকার, বাংলাদেশের মানুষের বাক স্বাধীনতা যেভাবে হরণ করেছে, আজকে বাংলাদেশের স্বাধীনতার ৫০ বছর পরে আমাদেরকে আবারও একটি যুদ্ধ করতে হবে। কারন বাংলাদেশের মানুষ শান্তিকামী। তারা এই অবৈধ, ভোটারবিহীন, নিশিরাতের সরকার কে আর দেখতে চায় না। এজন্য সকলকে আরেকটি গণতন্ত্রের যুদ্ধের জন্য ঐক্যবদ্ধ ভাবে প্রস্তুত থাকতে হবে।

সন্মেলনে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির অন্যতম সদস্য তাবিথ আউয়াল ও ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির যুগ্ম আহবায়ক মোহাম্মদপুর জোনের টিম প্রধান মোঃ আকতার হোসেন।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির যুগ্ম আহবায়ক আনোয়ারুজ্জামান আনোয়ার, আতিকুল ইসলাম মতিন ,আতাউর রহমান চেয়ারম্যান, মোস্তাফিজুর রহমান সেগুন, ফেরদৌসী আহমেদ মিষ্টি, আক্তার হোসেন , হাজী ইউসুফ, আফতাব উদ্দিন জসীম, এবিএমএ রাজ্জাক, আহসান হাবিব মোল্লা, আলাউদ্দিন সরকার টিপু, এম এস আহমাদ আলী সহ বিভিন্ন থানা বিএনপি ও অংগ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ।

সন্মেলনে ভোটারদের সরাসরি ভোটের মাধ্যমে ৩৪ নম্বর ওয়ার্ডে এডভোকেট মাসুম খান রাজেশ সভাপতি ও ওসমান রেজা সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন।

উল্লেখ্য ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির ৮ টি সাংগঠনিক জোনের ২৬ টি থানাধীন ৭১ টি ওয়ার্ডের সন্মেলন গত ১ লা জুন ২০২২ ইং শুরু হয়ে ০২ রা জুলাই ২০২২ ইং পর্যন্ত ধারাবাহিক কর্মসূচির আওতায় ৭১ টি ওয়ার্ডের সন্মেলন আজ শেষ হলো।