কী সব কান নিয়েছে চিলে’ জাতীয় লোকজনে বাংলাদেশ ভর্তি হয়ে যাচ্ছে?

84

ফজলুল বারীঃ এরা কী একবারও দুনিয়ার দিকে তাকায়? দুনিয়া কোথায় দৌড়াচ্ছে, কী নিয়ে ব্যস্ত সবাই আর এরা কী নিয়ে ব্যস্ত? একদল অসভ্য লোক বাংলাদেশের অন্যতম প্রধান মানবাধিকার নেত্রী, মুক্তিযাদ্ধা সুলতানা কামালকে যা খুশি বলে ধুয়ে দিচ্ছে! তিনি নাকি মসজিদ তুলে দেবার কথা বলেছেন! ওই টকশোর ভিডিও ক্লিপটা আবার দেখলাম-শুনলাম। টকশোতে এক মোল্লা বলছে বাংলাদেশ কোন সাম্প্রদায়িক দেশ নয়। এখানে কোন একটি বিশেষ সম্প্রদায়ের মূর্তি থাকতে পারেনা। সুলতানা কামাল তখন ওই মোল্লার বক্তব্যের সূত্র ধরে হাসতে হাসতে যা বলেছেন এর ভাবার্থ দাঁড়ায় মূর্তি যদি কোন সম্প্রদায়ের বিষয় হয় মসজিদওতো একটি সম্প্রদায়ের। বাংলাদেশ অসম্প্রদায়িক দেশ বলে মূর্তি যদি এখানে সাম্প্রদায়িক জ্ঞানে না রাখা হয় তাহলে সম্প্রদায়িক জ্ঞানে এখানেতো মসজিদও থাকার-রাখার কথা না। তাঁর এ কথার মানে কী দাঁড়ায় তিনি মসজিদ তুলে দিতে বলেছেন? বাংলাদেশের মুক্তিযাদ্ধারা দেশ স্বাধীন করলে তারা সব মসজিদ তুলে দেবে, এটা পাকিস্তানিরা বলতো, এখন ভোটের আগে বিএনপি বলে, এই অসভ্যগুলো এর বাইরের কেউ কি? এই দেশের জন্যে এই মুক্তিযাদ্ধা, মানবাধিকার নেত্রী নারীর ত্যাগ কী এরা বিন্দু পরিমান জানে? এমন কোন অর্ধ শিক্ষিত, অসভ্য, বদমাশকে আমার ওয়ালে আর দেখা মাত্র ব্লক দিবো। এত ধর্মপ্রাণরা রোজায় মসজিদ ফেলে ফেসবুকে কেনো?-লেখক: প্রবাসী ও সাংবাদিক