“এখন অতীত নিয়ে কাঁদাছোড়াছুড়ি বিভক্তির সময় না”-জাসদ

72

যুগবার্তা ডেস্কঃ জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল-জাসদ সাধারণ সম্পাদক শিরীন আখতার এমপি গুপ্তহত্যা-উগ্রবাদ-সন্ত্রাসবাদ-জঙ্গিবাদ মোকাবেলায় সর্বস্তরের জনগণকে সাথে নিয়ে গণপ্রতিরোধ গড়ে তোলার জন্য জাসদ ও ১৪ দলের নেতা-কর্মীদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন। শিরীন আখতার এমপি আজ মঙ্গলবার সকালে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে জাসদ সভাপতি ও তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু এমপিকে হত্যার হুমকির প্রতিবাদে ঢাকা মহানগর জাসদ আয়োজিত বিক্ষোভ সমাবেশে ভাষণদানকালে এ কথা বলেন।
শিরীন আখতার বলেন, গুপ্তহত্যা-জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে লড়াই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার একার লড়াই না, এই লড়াই সমগ্র জাতির লড়াই। তাই এখন অতীত নিয়ে কাঁদাছোড়াছুড়ির, বিভক্তির সময় নয়, ঐক্যকে জোরদার করার সময়। তিনি বলেন, জাতীয় পর্যায়ের কোনো নেতার এমন কথা বলা উচিৎ না, যাতে ঐক্য নিয়ে বিভ্রান্তি সৃষ্টি হতে পারে, শত্রু পক্ষ উৎসাহিত হতে পারে। তিনি বলেন, সবাই সবার অতীত জেনেই জাতীয় প্রয়োজনে ঐক্যবদ্ধ হয়েছে। জাসদ ইতিহাসকে আড়াল করে না। জাসদ অতীতের উপর দাঁড়িয়েই রাজনৈতিক প্রয়োজনে ঐক্য করেছে। রাজনৈতিক ঐক্য মানে লেন-দেন, দান-অনুদান, করুনা-অনুকম্পা না। শিরীন আখতার বলেন, কাফনের কাপড় পাঠিয়ে হাসানুল হক ইনু বা জাসদকে ভয় দেখানো যাবে না। তিনি এ কাপুরুচিত কাজের নিন্দা জানিয়ে বলেন, জঙ্গিবাদ-উগ্রবাদ-গুপ্ত হত্যার বিরুদ্ধে জাসদের লড়াই অব্যাহত থাকবে।

জাসদের ঢাকা মহানগর কমিটির সমন্বয়ক মীর হোসাইন আখতারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন জাসদ স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. আনোয়ার হোসেন, ঢাকা মহানগর জাসদের যুগ্ম-সমন্বয়ক নুরুল আখতার, জাসদের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক শওকত রায়হান, ঢাকা মহানগর উত্তর জাসদের সভাপতি সফি উদ্দিন মোল্লা ও সাধারণ সম্পাদক ইদ্রিস আলী, ঢাকা মহানগর পূর্ব জাসদের সভাপতি শহীদুল ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক এ কে এম শাহ আলম, ঢাকা মহানগর পশ্চিম জাসদের সভাপতি মাইনুর রহমান ও সাধারণ সম্পাদক মোঃ নুরুন্নবী, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ জাসদের সাধারণ সম্পাদক মুহিবুর রহমান মিহির, জাতীয় যুব জোট সভাপতি রোকনুজ্জামান রোকন, শ্রমিক নেতা কাজী সিদ্দিকুর রহমান, বাংলাদেশ ছাত্রলীগ সভাপতি মুহাম্মদ সামছুল ইসলাম সুমন প্রমূখ।

সমাবেশে জাসদ স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. আনোয়ার হোসেন তার বক্তব্যে বলেন, যখন জঙ্গিরা মহাজোট সরকারের বিরুদ্ধে জিহাদ ঘোষণা করেছে, তখন সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের জাসদ থেকে মন্ত্রী করায় সরকারকে পচকাতে হবে এ ধরনের উক্তি খুবই দুঃখজনক।