আঙ্গুলের ছাপে সিম নিবন্ধন করা যাবে পোস্ট অফিসেও

101

যুগবার্তা ডেস্কঃ ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম জানিয়েছেন, দেশে ৯ হাজারেরও বেশি পোষ্ট অফিসের মাধ্যমে বায়োমেট্রিক পদ্ধতিতে সিম নিবন্ধন ও পুনঃনিবন্ধন করা যাবে। এ বিষয়ে গত সপ্তাহে মোবাইল অপারেটরদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।
সোমবার সচিবালয়ে নিজ কার্যালয়ে সাংবাদিকদের এসব তথ্য জানিয়েছেন প্রতিমন্ত্রী।
তারান বলেন, ‘অপারেটরদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে তারা যেনো আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে এ কার্যক্রম শুরু করতে পারে। এর ফলে মোবাইল কোম্পানিগুলোর গ্রাহক সেবা কেন্দ্র ছাড়াও পোষ্ট অফিস থেকেও সিম বায়োমেট্রিক পদ্ধতিতে নিবন্ধন করা যাবে।’
প্রতিমন্ত্রী আরো জানান, জাতীয় পরিচয় পত্রের (এনআইডি) সঙ্গে যাদের আঙুলের ছাপ মিলছে না তাদের নতুন এনআইডি তৈরি করে সিম পুনঃনিবন্ধন করতে হচ্ছে। এজন্য অনেকেরই কিছুটা ভোগান্তি হচ্ছে জানিয়ে তারান বলেন, ‘ভোগান্তি এড়াতে এনআইডি কর্তৃপক্ষের আঞ্চলিক অফিসগুলোতে ডিভাইস বসিয়ে সিম পুনঃনিবন্ধনের ব্যবস্থা করা হবে।’
টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী বলেন, আগামী ৩০ এপ্রিলের মধ্যে সিম পুনঃনিবন্ধন না করলে তা সামায়িকভাবে বন্ধ করে দেওয়া হবে। পরবর্তীতে পুনঃনিবন্ধন করলে আবার সিমকার্ড খুলে দেওয়া হবে।
গত বছরের ১৬ ডিসেম্বর থেকে বায়োমেট্রিক পদ্ধতিতে মোবাইল সিম ও রিম কার্ড নিবন্ধন ও পুনঃনিবন্ধন শুরু হয়। দেশের বিভিন্ন পক্ষ থেকে অভিযোগ করা হয়, বেসরকারি অপারেটরদের কাছে জনগণের আঙুলের ছাপ সংরক্ষিত হলে তা দেশের ও ব্যক্তির নিরাপত্তার জন্য হুমকি। বিষয়টি নিয়ে আদালতে রিটও হয়েছে।