অভিযুক্ত বেপরোয়া পাঁচ পুলিশকে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিন-সিপিবি

82

ফুটপাতের চা-দোকানি বাবুল মাতবর হত্যাকা-ের বিচার অভিযুক্ত পাঁচ পুলিশকে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি ও বাবুল মাতবরের পরিবারকে উপযুক্ত ক্ষতিপূরণের দাবিতে আজ মিরপুর গোলচত্ত্বরে বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি) ঢাকা কমিটির উদ্যোগে মানববন্ধন সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।
সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন ঢাকা কমিটির সদস্য খানা আসাদুজ্জামান মাসুম। বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় নেতা ঢাকা কমিটির সাধারণ সম্পাদক ডা. সাজেদুল হক রুবেল, ঢাকা কমিটির সদস্য সেকেন্দার হায়াৎ, আক্তার হোসেন, রিয়াজ উদ্দিন, বাংলাদেশ হকার্স ইউনিয়নের আহ্বায়ক আব্দুল হাশেম কবির, মিরপুর থানার সভাপতি সেবাস্তীন ম-ল, মুর্শিকুল ইসলাম শিমুল, রাসেল ইসলাম সুজন প্রমুখ।
সমাবেশে নেতৃবৃন্দ বলেন, গত বুধবার রাতে শাহ আলী থানার পুলিশের সোর্সরা (তথ্যদাতা) মিরপুর ১ নম্বরে চিড়িয়াখানা লেকের পাড়ে কিংসুক সমবায় সমিতির পাশে চা-দোকানি বাবুল মাতবরের কাছে যান। চাঁদা না দেওয়ায় কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে সোর্স দেলোয়ার লাথি দিয়ে বাবুলকে কেরোসিন তেলের জ্বলন্ত চুলার উপর ফেলে দেন। এতে বাবুলের সারা শরীর পুড়ে যায়। ঘটনাস্থলের কাছাকাছি শাহ আলী থানার এস আই মমিনুর, এস আই দেবেন্দ্র নাথ ও কনস্টেবল জসিমউদ্দিন উপস্থিত ছিলেন। তারা ইচ্ছা করলে বাবুলকে বাঁচাতে পারতো। উপরন্তু বাবুলের স্ত্রী লাকি বেগম বালতিতে থাকা পানি দিয়ে স্বামীর শরীরের আগুন নেভাতে গেলে পুলিশ বাধা দেয়। পুলিশের হাতে-পায়ে ধরে কান্নাকাটি করলে ও কাজ হয়নি। এহেন জঘন্য, বর্বর পুলিশকে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে।
সমাবেশে নেতৃবৃন্দ আরো বলেন চা-দোকানি বাবুল মাতবর ছিলে পরিবারের একমাত্র উপার্জনক্ষম ব্যক্তি। অতএব তার পরিবারের ভরন-পোষণের জন্য উপযুক্ত আর্থিক ক্ষতি পূরণ দিতে হবে।
সমাবেশে নেতৃবৃন্দ পুলিশেল সোর্সদের আসামী করায় সোর্সদের স্বজনেরা বাবুল মাতবরের পরিবারকে দেখে নেওয়ার যে হুমকি প্রদান করেছে তার বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানান।
সমাবেশ শেষে একটি মিছিল মিরপুরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে।সংবাদ বিজ্ঞপ্তি