ডিজিটাল ডাকঘর গড়ে তুলছি–মোস্তাফা জব্বার

5

যুগবার্তা ডেস্কঃ ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী জনাব মোস্তাফা জব্বার বলেছেন, দেশ যত বেশী ডিজিটাল হচ্ছে ডাকঘরের সম্ভাবনা ততটাই বাড়ছে। ডাক বিভাগ কেবল চিঠিপত্র আদান প্রদান বা লেন দেনে সীমাবদ্ধ থাকে না, ডাকঘর ব্যাংকিং সেবা দেয়, বীমা সেবা দেয়, মানুষের পণ্য বহন করে। ডাক অধিদপ্তর সেবা প্রতিষ্ঠান। ডাক অধিদপ্তর রানারের যে প্রতীক বহন করে চলেছে, এই প্রতীক একটি জীবন ধারা। এই জীবন ধারাকে চলমান রাখা আমাদের কর্তব্য। ডাকসেবা মানুষের জীবনের সাথে ওতপ্রোতভাবে জড়িয়ে আছে। ডাকঘরকে যুগোপযোগী করার কাজ শুরু হয়েছে। দেশব্যাপী ডাক অধিদপ্তরের বিস্তৃত নেটওয়ার্ক ও বিশাল জনবলকে কাজে লাগিয়ে বাংলাদেশ পোস্ট অফিসকে দৃষ্টান্তকারী প্রতিষ্ঠান হিসেবে গড়ে তোলা হবে। আমরা ডিজিটাল ডাকঘর গড়ে তুলছি।
মন্ত্রী আজ ঢাকায় ডাক অধিদপ্তরের সদরদপ্তরে বিশ্ব ডাক দিবস উপলক্ষে ডাক অধিদপ্তর আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন। অনুষ্ঠানে মোবাইল ফিন্যান্স সার্ভিস নগদ এর নতুন লোগো উন্মোচন করা হয়।

ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের সচিব অশোক কুমার বিশ্বাস এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে ডাক অধিদপ্তরের মহাপরিচালক এস এস ভদ্র বক্তৃতা করেন।
ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী বলেন, যে প্রতিষ্ঠানগুলোর সম্ভাবনা আছে তার চ্যালেঞ্জও আছে। প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনার গতিশীল প্রজ্ঞাবান নেতৃত্বে বাংলাদেশ অভাবনীয় রূপান্তরের সময় অতিক্রম করছে। এই চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় আমাদের বিদ্যমান মানব সম্পদকে ভবিষ্যত প্রযুক্তি উপযোগী করে গড়ে তুলতে হবে – রূপান্তরের সাথে চলতে হবে। তিনি বলেন, যে প্রযুক্তি দিয়ে দুনিয়া চলবে ডাক বিভাগও তাই করবে।

ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী ডাক বিভাগের ডিজিটাল ফিন্যান্স সার্ভিস রানার প্রতীক সম্বলিত নগদ এর নতুন লোগো সম্পর্কে বলেন, রানার মানে জীবন, জীবন মানে সামনে চলা , ছুটে চলার প্রতীক। অনেকের ধারনা চিঠিপত্র নাই, ডাক অধিদপ্তরের কাজও নাই উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, আমরা মানি অর্ডারের ও চিঠিপত্রের জগৎটাকে যখন ডিজিটাল করছি তখন পুরো দুনিয়াকে জানিয়ে দেওয়া দরকার আমাদের রানারের দৌঁড়ানো থামে নাই। আমরা দৌঁড়াচ্ছি মানুষের সাথে মানুষের সম্পর্ক স্থাপনের জন্য। তিনি বলেন, উন্নয়ন ডেলিভার করতে ডাক বিভাগ এখন সক্ষমতার জায়গায় পৌঁছেছে। তিনি বলেন বাংলাদেশের জনগণের আর্থিক অন্তর্ভূক্তি নিয়ে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে বাংলাদেশ ডাক বিভাগ। এই প্রয়াসের একটি ফসল ডাক বিভাগের ডিজিটাল আর্থিক সেবা নগদ। দেশের সাধারণ জনগণের আর্থিক অন্তর্ভূক্তিকে মূলমন্ত্র ধরে আজ ডাক বিভাগের ডিজিটাল সেবা নগদ ও রাষ্ট্রীয় মোবাইল অপারেটর টেলিটক বাংলাদেশের ইতিহাসে এক অনন্য অধ্যায় রচনা করেছে।
সকল টেলিটক গ্রাহক এখন থেকে নগদ-এর সকল সেবা গ্রহণ করতে পারবেন। এই সেবা গ্রহণের জন্য টেলিটক গ্রাহকদের শুধু নগদ অ্যাকাউন্টের পিন সেট করে নিতে হবে।
ডাক বিভাগের ডিজিটাল সেবা নগদ ও রাষ্ট্রীয় মোবাইল অপারেটর টেলিটক ১ দিনে ৬০ লাখ গ্রাহককে আর্থিক অন্তর্ভূক্তির আওতায় নিয়ে এসেছে, যা কেবল বাংলাদেশের জন্য একটি মাইলফলক নয় বরং সারা বিশে^র জন্য একটি রেকর্ড। চলতি বছরের স্বাধীনতা দিবসে (২৬ মার্চ) মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ডাক বিভাগের ডিজিটাল আর্থিক সেবা নগদ উদ্বোধন করেন।
ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী বলেন,ডাক বিভাগের শতাব্দী প্রাচীন “মানি অর্ডার” সেবা এখন থেকে “ডিজিটাল মানি অর্ডার” সেবায় রূপান্তরিত হবে আর এটি পাওয়া যাবে ডাক বিভাগেরই ডিজিটাল আর্থিক সেবা নগদ-এ। এর ফলে গ্রাহক আরও দ্রুত সময়ে আর্থিক লেনদেন করতে পারবেন।