বর্তমান সরকার হকারদের পুনর্বাসন করবে–মেনন

72

যুগবার্তা ডেস্কঃ সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সভাপতি জনাব রাশেদ খান মেনন এমপি বলেছেন, বর্তমান সরকারের নীতি হচ্ছে হকারদের পুনর্বাসন করা, উচ্ছেদ নয়। সরকার স্থায়ীত্বশীল উন্নয়ন লক্ষ্য বাস্তবায়ন করতে চায়। আর স্থায়ীত্বশীল উন্নয়নের মূল কথা No one lift behind অর্থাৎ কেউ কারো পিছনে থাকবে না। ফলে আমি মনে করি আমার সরকার হকারদের পুনর্বাসন করবে। উচ্ছেদ করবে না।

আজ হকারদের স্মারকলিপি গ্রহনকালে এ কথা বলেন তিনি।

মেনন বলেন, আমি আগামী সোমবার মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশ নেত্রী শেখ হাসিনাকে আপনাদের কষ্টের কথাগুলো তুলে ধরব আর আপনাদের যাতে উচ্ছেদ করা না হয় সে বিষয়টিও বলব। তিনি বিশেষ করে পুলিশ প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করে বলেন, আপনারা হকারদের উপর নমনীয় আচারণ করবেন। কারণ এই মানুষগুলো কষ্টে আছে। তিনি সংহতি জানিয়ে বলেন, আপনারা আমার ভোটার। আমি আগেও আপনাদের পাশে ছিলাম ভবিষ্যতেও আপনাদের পাশে থাকব।

বাংলাদেশ হকার্স ইউনিয়নের ধারাবাহিক কর্মসূচির অংশ হিসেবে আজ বেলা ১২টায় বিজয়নগর আকরাম টাওয়ারের সামনে ঢাকা ৮ আসনের সংসদ সদস্য রাশেদ খান মেননকে স্মারকলিপি প্রদান কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়। সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন সংগঠনের সভাপতি আব্দুল হাশেম কবির। বক্তব্য রাখেন কার্যকরি সভাপতি মুর্শিকুল ইসলাম শিমুল, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হযরত আলী, শফিকুর রহমান বাবুল, সাংগঠনিক সম্পাদক মোহাম্মদ জসিমউদ্দিন, কেন্দ্রীয় নেতা মো. শহীদ, মো. আনোয়ার হোসেন, মো. মজিদ প্রমুখ।

সমাবেশে নেতৃবৃন্দ বলেন, ঢাকা সিটির মেয়রগণ হকারদের বিরুদ্ধে জিহাদ ঘোষণা করেছেন। উনারা দীর্ঘদিন ধরে বলে যাচ্ছেন, জনগণের ফুটপাত জনগণকে ফিরিয়ে দিবেন। কথাটা শুনতে বেশ চটকদারী, কিন্তু এই নগরীর লক্ষ লক্ষ হকার এবং তাদের ষাট থেকে সত্তর লক্ষ ক্রেতা, তারা কি জনগণের হিসাবের মধ্যে পড়ে না? এই প্রশ্নের উত্তর মেয়র সাহেবরা এড়িয়ে যাচ্ছেন। নগরীর পঁচানব্বই ভাগ মানুষ কেনা-কাটার জন্য কম বেশি ফুটপাতের উপর নির্ভরশীল। তাদের অধিকাংশ বিত্তহীন শ্রমজীবী বা কম বিত্তের মানুষ। যাদের ফুটপাত ভিন্ন অন্য কোথাও কেনাকাটা করতে যাওয়ার উপায় নেই। মেয়রসহ অন্যান্য যারা হকার প্রশ্নকে পাশ কাটিয়ে ফুটপাত একেবারে ফাঁকা করতে চাচ্ছেন, তারা জনগণ বলতে সম্ভবত শুধুমাত্র বিত্তবান নগরবাসীকেই বোঝাচ্ছেন।

নেতৃবৃন্দ আরও বলেন, মেয়রদের বর্তমান অবস্থান আমাদের মহান মুক্তিযুদ্ধের মধ্য দিয়ে অর্জিত সংবিধানের সাথে সাংঘর্ষিক কি না? বিষয়টি আপনার মাধ্যমে জাতির কাছে প্রশ্ন রাখতে চাই। কারণ সংবিধানের ৭(ক) অনুচ্ছেদ আমাদেরকে রাষ্ট্রের মালিকানা দিয়েছে। আর একটি রাষ্ট্র গঠনের জন্য ৪টি উপাদান লাগে তার অন্যতম উপাদান হচ্ছে মানুষ বা জনগণ। তাহলে আমরা হকাররা কি মানুষ না?

সমাবেশের পূর্বে একটি বিশাল মিছিল পল্টন মোড় থেকে শুরু হয়ে গুলিস্তান নগরভবন-প্রেসক্লাব হয়ে বিজয়নগরস্থ আকরাম টাওয়ারের সামনে অবস্থান নিয়ে রাশেদ খান মেননকে স্মারকলিপি প্রদান করেন।।