বৈশ্বিক চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় প্রাথমিক স্তর থেকেই শিক্ষার ডিজিটাল রূপান্তর অপরিহার্য–মোস্তাফা জব্বার

1

যুগবার্তা ডেস্কঃ ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী জনাব মোস্তাফা জব্বার বলেছেন, একবিংশ শতাব্দির বৈশ্বিক চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় যুগোপযোগী শিক্ষার বিকল্প নেই। প্রচলিত শিক্ষা পদ্ধতিতে আগামী দিনের দক্ষ জনসম্পদ তৈরি করা অসম্ভব। দক্ষ ও প্রযুক্তি উপযোগী জনসম্পদ তৈরির মাধ্যমে আধুনিক জাতি গঠনে প্রাথমিক স্তর থেকেই শিক্ষার ডিজিটাল রূপান্তর করতে হবে। শিক্ষার ডিজিটাল রূপান্তর অপরিহার্য। এই লক্ষ্যে বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ ও বাস্তবায়ন শুরু হয়েছে।

মন্ত্রী আজ ঢাকায় মিরপুরে ইংলিশ ভার্সন স্কুল এন্ড কলেজে, বাংলাদেশ ডিজিটাল স্কুল সোসাইটি (বিডিএসএস) আয়োজিত ইংলিশ ভার্সন স্কুল ও কলেজে ‘শিক্ষাক্ষেত্রে ডিজিটাল কন্টেন্ট ব্যবহারের সুবিধা” শীর্ষক একদিনের “বিশেষ” শিক্ষক প্রশিক্ষণ কর্মশালায় উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, শিক্ষকদের অবশ্যই ডিজিটাল প্রশিক্ষণে প্রশিক্ষিত হতে হবে। আর বর্তমান শিক্ষাব্যবস্থার মান বৃদ্ধি করতে শিক্ষকদের অবশ্যই ডিজিটাল শিক্ষা ভালোভাবে আয়ত্ব করতে হবে। তা না হলে যুগোপযোগী শিক্ষা ব্যবস্থা থেকে একধাপ পিছিয়ে পড়বে শিক্ষার্থীরা। তিনি বলেন, আগামি এক বছরের মধ্যে তথ্য প্রযুক্তিসেবা সকল নাগরিকের নাগালের মধ্যে নিয়ে আসা হবে। তারই ধারাবাহিকতায় ২০১৯ সালেরর মধ্যে দেশের প্রতিটি ঘরে ঘরে ইন্টারনেট সেবা পৌছে দেয়া হবে। কারণ বর্তমান প্রেক্ষাপটে সকল কাজকর্ম তথ্যপ্রযুক্তি নির্ভর হয়ে পড়েছে। তিনি আরো বলেন, আজকাল কেউ যদি নিজেকে তথ্যপ্রযুক্তির বাইরে রাখেন বা ডিজিটাল শিক্ষায় অনাগ্রহ প্রকাশ করেন তবে নিশ্চিতভাবে তিনি পিছিয়ে পড়ছেন। তাই নিজেকে ভবিষ্যতের জন্য তৈরি করতে হলে ডিজিটাল শিক্ষায় নিজেকে তৈরি করতে হবে। শিক্ষাক্ষেত্রে আধুনিক এবং গুণগত পরিবর্তন আনার লক্ষ্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার নিরলসভাবে কাজ করছে। তারই সুযোগ্য নেতৃত্বে বাংলাদেশ ডিজিটাল শিল্প বিপ্লবে নেতৃত্বদানকারী দেশের কাতারে উপনীত হয়েছে। বিশ্বে অনুকরণীয় দেশ হিসেবে দৃষ্টান্ত স্হাপন করেছে। এই ধারা অব্যাহত থাকলে আগামী পাঁচ বছরে বাংলাদেশ বিস্ময়কর অগ্রগতি সুনিশ্চিত।

প্রশিক্ষণ কর্মশালায় রাজধানীর প্রায় ২৫০টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধান এবং আইসিটি বিষয়ক শিক্ষকগণ উপস্থিত ছিলেন।

মিরপুর ইংলিশ ভার্সন স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ এবং বিডিএসএস সভাপতি ইয়াহিয়া খান রিজনের সভাপতিত্বে কর্মশালায় সম্মানিত অতিথি হিসেবে বিজয় ডিজিটালের সিইও জেসমিন জুই, ডিএনসিসি ৩ নং ওয়ার্ড কাউন্সির কাজী জহিরুল ইসলাম মানিক, ঢাকা জেলা শিক্ষা অফিসার মো. বেনজীর আহম্মদ, থানা (মাধ্যমিক) শিক্ষা অফিসার আব্দুল কাদের ফকির, থানা (প্রাথমিক) শিক্ষা অফিসার জেসমিন বানু উপস্থিত ছিলেন।