একনজরে ইমরান খানের বৈবাহিক জীবন

3

যুগবার্তা ডেস্কঃ পাকিস্তানের তেহরিক-ই-ইনসাফ দলের চেয়ারম্যান ও পাকিস্তানের বর্তমান অঘোষিত প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান রাজনীতির খাতায় নাম লেখার আগে প্লেবয় হিসেবে পরিচিত হন প্রেমের অঙ্গনে। তার জীবনে নানা সময়ে বহু নারীর আগমনের গুঞ্জন উঠলেও বিয়ে করেছেন তিনজনকে। তবে ইতিমধ্যে দুই জনের সঙ্গে বিচ্ছেদ হয়েছে।

প্রথম বিয়ে
ইমরান খান প্রথম বিয়েটা করেন ১৯৯৫ সালে ৪২ বছর বয়সে। দারুণ ঢাকঢোল পিটিয়ে করেছিলেন প্রথম বিয়ে। জেমিমা গোল্ডস্মিথও ভালোবাসার মোহে নিজের ধর্ম পরিবর্তন করে বিয়ের আসরে বসেন। ভালোই চলছিলো সবকিছু। কিন্তু বিয়ের ৯ বছরের মাথায় হয় বিচ্ছেদ। দাম্পত্য জীবনে বনিবনা না হওয়ায় ২০০৪ সালে প্রথম সংসার জীবনের ইতি টানেন ইমরান। তবে তাদের ৯ বছরের দাম্পত্য জীবনে ছিলো দুই ছেলে। সেসময় ২ ছেলেকে নিয়ে আবার নিজ দেশে পাড়ি জমান জেমিমা।

দ্বিতীয় বিয়ে

অনেকদিন একা থাকলেও নানা গুঞ্জন ওঠে ইমরান খান সম্পর্কে। অবশেষে বিবিসির টেলিভিশন সাংবাদিক রেহাম খানের সঙ্গে দ্বিতীয় গাটছড়া বাঁধেন ইমরান খান। ২০১৫ সালের ৮ জানুয়ারি করেন দ্বিতীয় বিয়ে। তবে এ বিয়ে এক বছরও টেকেনি। বিয়ের দশ মাসের মাথায় অক্টোবরে ঘটে বিচ্ছেদ। দ্বিতীয় বিবাহ বিচ্ছেদের পর ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়েন ইমরান খান। তার দ্বিতীয় স্ত্রী ইমরান খানকে নিয়ে করেন অনেক বেফাস মন্তব্য। ইমরান খানও বলেন, দ্বিতীয় বিয়েটা তার জীবনের সবচেয়ে বড় ভুল।

তৃতীয় বিয়ে

দ্বিতীয় বিচ্ছেদের কয়েক বছরের মাথায় আবার করেন আরেক বিয়ে। ২০১৮ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে তৃতীয়বারের মতো বসেন বিয়ের পিড়িতে। বুশরা মেনেকা নামের পাকিস্তানের পাকপাত্তান এলাকার পীর বংশের মেয়েকে বিয়ে করেন এবার। তখন তার বয়স ৪০।

এসব বিয়ে ছাড়াও ইমরান খানের জীবনে ছিলো নানা প্রেম। তাকে নিয়ে নানা সময় নানা ধরনের প্রেমের গুঞ্জনে গরম থাকতো মিডিয়া পাড়া। ক্রিকেট মাঠে যেমন দুর্দান্ত পারফরমেন্ট দিয়েছিলেন, প্রেম নিয়ে খেলায়ও তার পারফরমেন্স প্রায় সমানতালে ছিল।
-ইত্তেফাক