‘‌মি টু’ এবং ‘‌টাইমস আপ’‌

6

যুগবার্তা ডেস্কঃ কোনও ড্রেস কোড ছিল না। কিন্তু যৌন হেনস্থার বিরুদ্ধে ওঠা প্রচার থেকে বাদ গেল না অস্কারের মঞ্চও। ৯০তম অস্কার পুরস্কারের সঞ্চালক ছিলেন আমেরিকার জনপ্রিয় সঞ্চালক জিমি কিমেল। অনুষ্ঠানের শুরুতেই নিজস্ব ভঙ্গিমায় ‘‌মি টু’ এবং ‘‌টাইমস আপ’‌–এর প্রচার করলেন জিমি। কটাক্ষ করলেন হলিউডের লিঙ্গ বৈষম্যের। বললেন, এধরনের ঘটনা সম্পূর্ণভাবে রোখার জন্য হলিউডের ক্ষমতা সীমিত। হলিউডে ‘‌হোয়াট উইমেন ওয়ান্ট’‌ নামে ছবিতে অভিনয় করেছেন যৌন হেনস্থায় অভিযুক্ত নায়ক মেল গিবসন। হলিউডে মহিলা চিত্র পরিচালকের সংখ্যা মাত্র ১১ শতাংশ যা অনেকটাই কম। এজন্য আরও বেশি করে সরব হতে হবে সবাইকে বলে মন্তব্য করেন জিমি। হার্ভে উইনস্টেইনের বিরুদ্ধে প্রথম সরব হওয়া তিন অভিনেত্রী সালমা হায়েক, অ্যাশলে জাড এবং অ্যানাবেলা স্কিওরা এদিন মঞ্চে উঠে যৌন হেনস্থার প্রতিবাদে এগিয়ে আসা মানুষদের সম্মান জানান। বলেন, এখন অনেকেই প্রতিবাদ করছেন। কিন্তু আরও নতুন প্রতিবাদকণ্ঠ চাই। যে বিশ্বে যৌন হেনস্থার মতো ঘটনা হয়, সেই পরিস্থিতির সম্পূর্ণ পরিবর্তন দরকার।