সাবেক ফুটবলার বাদল রায় মারা গেছেন

3

ডেস্ক রিপোর্ট: জাতীয় ফুটবল দলের সাবেক অধিনায়ক এবং ক্রীড়া সংগঠক বাদল রায় মারা গেছেন। আজ বিকেলে ৫টা ৩৫ মিনিটে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিলো ৬২ বছর।
কয়েক বছর ধরে তিনি ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়েও ক্রীড়াঙ্গনে বিভিন্ন ক্ষেত্রে সক্রিয় ছিলেন। বাফুফের নির্বাচনের কয়েক দিন পরই পেটে ব্যথাসহ নানা উপসর্গ নিয়ে প্রথমে আসগর আলী হাসাতালে এবং পরে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে ভর্তি হন বাদল রায়। সপ্তাহে তিনবার ডায়ালাইসিস করাতে হয়েছে। গত রবিবার যকৃতে স্টেজ-৪ ক্যানসার ধরা পড়ে।
এরআগে, ২০১৭ সালে মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণজনিত কারণে তার শরীরের এক পাশ অবশ হয়ে যায়। পরে প্রধানমন্ত্রীর সহায়তায় তাকে সিংগাপুরে উন্নত চিকিৎসার জন্য পাঠানো হয়। অনেকটা সুস্থ হয়ে ফিরলেও স্বাভাবিক জীবনে আর ফিরতে পারেননি।
তার মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শোক প্রকাশ করেছেন।
এছাড়াও বিভিন্ন সংগঠন গভীর শোক জানিয়েছেন।
৮০’র দশকের শুরুতে কুমিল্লা থেকে ঢাকায় মোহামেডান স্পোর্টিংয়ে ক্লাবে ক্যারিয়ার শুরু বাদল রায়ের। খেলোয়াড়ী জীবনে ক্লাব পরিবর্তন করেননি, পরবর্তীতে সংগঠক হিসেবেও কাজ করেছেন মোহামেডানের হয়ে। জাতীয় দলেও তার সমান আধিপত্য ছিল। সংগঠক হিসবেও সুনাম কুড়িয়েছেন তিনি। বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনে যুগ্ম সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালনের পর টানা তিনবার সহ-সভাপতি নির্বাচিত হন। জাতীয় ক্রীড়া পুরষ্কারবপ্রাপ্ত সাবেক ফুটবলার অলিম্পিক অ্যাসোসিয়েশনে সহ-সভাপতি ছাড়াও জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের কোষাধ্যক্ষ হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। সাবেক ফুটবলারদের সংগঠন সোনালী অতীত ক্লাবেরও সভাপতি ছিলেন।
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র সংসদের সাবেক ক্রীড়া সম্পাদক বাদল রায় ১৯৯১ সালে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসেবে কুমিল্লার দাউদকান্দি আসন থেকে সংসদ সদস্য পদে নির্বাচন করেছিলেন।