মোংলা বন্দরে ব্যবসা-বাণিজ্যের প্রসার হয়েছে সরকারের পলিসির জন্য–খুলনা মেয়র

22

খুলনা অফিসঃ মোংলা বন্দরে ব্যবসা-বাণিজ্যের প্রসার হয়েছে বর্তমান সরকারের পলিসির জন্য। সরকারের ধারাবাহিকতা না থাকলে এতো উন্নয়ন সম্ভব হতো না। মানুষের আস্থা ফিরিয়ে আনতে হবে। ব্যবসায়ীরা যেন কাস্টম্স’র মাধ্যমে হয়রানির শিকার না হন। কাস্টম্স , রাজস্ব বোর্ড, ভ্যাট কর্তৃপক্ষের আদায়কৃত অর্থ দিয়েই পদ্মা ব্রীজ নির্মান হচ্ছে। আমাদের এখন আর বিদেশ নির্ভরতা নেই। বাজেটের ৯০ ভাগ আসে নিজস্ব অর্থ থেকে। ২৬ জানুয়ারি রবিবার দুপুরে আন্তর্জাতিক কাস্টম্স দিবস উপলক্ষে মোংলা কাস্টম্স হাউজ আয়োজিত সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় খুলনা সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আলহাজ্ব তালুকদার আব্দুল খালেক একথা বলেন।
রবিবার দুপুর ১২টায় অনুষ্ঠিত সেমিনারে সভাপতিত্ব করেন মোংলা কাস্টম্স হাউজের কমিশনার সুরেশ চন্দ্র বিশ্বাস। সেমিনারে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের সদস্য ( কর নীতি ) কানন কুমার রায়, খুলনা অঞ্চলের কর কমিশনার প্রশান্ত কুমার রায়, বিএনএস মোংলার কমান্ডিং অফিসার ক্যাপ্টেন মনিরুজ্জামান, কোস্ট গার্ড পশ্চিম জোনের জোনাল কমান্ডার ক্যাপ্টেন এম হাবীব-উল-আলম ও বাগেরহাট চেম্বার অব কমার্সের সভাপতি শেখ মোঃ লিয়াকত হোসেন। সেমিনারে প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন মোংলা কাস্টমস হাউজের যুগ্ম কমিশনার শামসুল আরেফিন। সেমিনারে স্বাগত বক্তব্য রাখেন কাস্টমস হাউজের ডেপুটি কমিশনার সুমন দাস। এছাড়া অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন সি এন্ড এফ এ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি সুলতান হোসেন খান ও শিপিং এজেন্ট এসোসিয়েশনের সভাপতি ক্যাপ্টেন মোঃ রফিকুল ইসলাম। প্রধান অতিথির বক্তৃতায় খুলনা সিটি মেয়র আলহাজ্ব তালুকদার আব্দুল খালেক আরো বলেন ১৯৯৬ সালের আগে মোংলায় কোন ইন্ডাষ্ট্রি ছিলো না। আওয়ামীলীগ সরকারের আমলে মোংলায় সাড়ে তিনশো একর জমির উপর ইপিজেড স্থাপিত হয়। বর্তমানে ৫টি সিমেন্ট ফ্যাক্টরি, ২৭টি এলপিজি কারখানা রয়েছে। ২০৫ একর জমি উপর বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। ৬৩৬ একর জমির অধিগ্রহণ করা হয়েছে বিমান বন্দরের জন্য যার কাজ ইতিমধ্যে শুরু হয়েছে। আশা করছি পদ্মা ব্রীজের সাথে সাথে ১৩২০ মেগাওয়াট ক্ষমতা সম্পনś রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র চালু হবে।
সভাপতির বক্তব্যে মোংলা কাস্টম্স হাউজের কমিশনার সুরেশ চন্দ্র বিশ্বাস বলেন কাস্টমস কার্যক্রমের গুরু দায়িত্ব পালন করার জন্য সকলের সহযোগিতা প্রয়োজন। সকলের সমন্বয়ের মাধ্যমে আমরা এগিয়ে যেতে পারবো। সেমিনারের আগে রবিবার সকাল ১১টায় আন্তর্জাতিক কাস্টম্স দিবস উপলক্ষে একটি বর্ণাঢ্য র‌্যালী মোংলা কাস্টম্স হাউজ থেকে বের হয়ে বন্দর জেটি, ইপিজেড গেট হয়ে আবার একই স্থানে এসে শেষ হয়।