মোংলায় বাঘ দিবসের মানববন্ধন

26

মোঃ নূর আলমঃ আমরা সৌভাগ্যবান জাতি। বিশ্বে অল্প যে কয়েকটি দেশে বাঘ রয়েছে তার মধ্যে বাংলাদেশ একটি। বিশ্ব বাঘ দিবস পালনের মুহুর্তে বাঘের আবাসস্থল সুন্দরবন বিপন্ন। সুন্দরবনকে সংরক্ষণের জন্য যথাযথ ব্যবস্থা নিতে হবে। বিশ্ব দরবারে আমরা যে প্রতিজ্ঞা করেছি তার প্রতিফলন হিসেবে বাঘের সংখ্যা যাতে বৃদ্ধি পায়, সুন্দরবন যাতে রক্ষা পায় সরকারকে তার জন্য কার্য্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে।

রবিবার সকালে বিশ্ব বাঘ দিবসে মোংলার সেন্ট পল্স উচ্চ বিদ্যালয়ের সামনে বাঘের আবাসস্থল সুন্দরবন রক্ষার দাবীতে মুখে কালো কাপড় বেধে মানববন্ধন চলাকালে সমাবেশে বক্তারা এ কথা বলেনে। পশুর রিভার ওয়াটারকিপার, ওয়াটারকিপার্স বাংলাদেশ এবং বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন ( বাপা ) এর আয়োজনে এ মানব বন্ধন কর্মসুচির আয়োজন করা হয়।

রবিবার সকাল ১১টায় মানববন্ধন চলাকালে সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন পশুর রিভার ওয়াটারকিপার বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন ( বাপা ) বাগেরহাট জেলার সমন্বয়কারি মোঃ নূর আলম শেখ। সমাবেশে বক্তব্য রাখেন সুন্দরবন জাদুঘরের পরিচালক সুভাষ চন্দ্র বিশ্বাস, পৌর আওয়ামীলীগের যুগĄ সম্পাদক কাজী গোলাম হোসেন বাবলু, সাংবাদিক নেতা শেখ কামরুজ্জামান জসিম, বাপা নেতা নাজমুল হক, জেলে সমিতির সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রশিদ হ্ওালাদার, রুদ্র সংসদের সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান টিটো, পশুর রিভার ওয়াটারকিপারের ভলান্টিয়ার গীতা হালদার, কমলা সরকার, রাকেশ সানা, রমেশ শীল প্রমূখ।

মানববন্ধন চলাকালে সমাবেশে বক্তারা আরো বলেন খাদ্য ও নিরাপদ বাসস্থানের অভাবে বাঘ লোকালয়ে আসছে এবং মারা যাচ্ছে। সুন্দরবনের খালে বিষ দিয়ে মাছ মারা এবং সুন্দরবনের প্রান পশুর নদীর দূষণের ফলে সুন্দরবনের খাদ্য শৃংখলা ভেঙ্গে পড়ছে। তাই সুন্দরবনের খালে বিষ প্রয়োগে মাছ মারা বন্ধ করতে এবং পশুর নদী দূষণ রোধে প্রশাসনকে জিরো টলারেন্স নীতি গ্রহণ করার পাশাপাশি সুন্দরবনের বাপার জোন এলাকায় অপরিকল্পিত শিল্পায়ন বন্ধ করতে হবে। মানববন্ধনে অংশগ্রহণকারীরা মুখে কাপড় বেধে বিপন্ন সুন্দরবনের চিহ্ন হিসেবে শুকনা এবং মরা গাছ নিয়ে দাড়ায়। এছাড়া শিশুরা তাদের আঁকা বাঘ নিয়ে মানববন্ধনে অংশগ্রহণ করে।

রবিবার বেলা ১২টায় পশুর রিভার ওয়াটারকিপার, ্ওয়াটারকিপার্স বাংলাদেশ এবং বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন ( বাপা ) এর আয়োজনে মোংলাপোর্ট পৌরসভা ও সেন্ট পল্স উচ্চ বিদ্যালয়ের সহযেগিতায় ”সুন্দরবনের রয়েল বেঙ্গল টাইগার” শিরোনামে রচনা ও শিশু চিত্রাংকন প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। প্রতিযোগিতা শেষে সেন্ট পল্স স্কুল মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত পুরস্কার বিতরনী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন পশুর রিভার ওয়াটারকিপার মোঃ নূর আলম শেখ। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন মোংলা পোর্ট পৌরসভার মেয়র মোঃ জুলফিকার আলী। বিশেষ অতিথি ছিলেন সেন্ট পল্স ধর্ম পল্লীর পালক পুরোহিত ফাদার জ্যাকব, মোংলা প্রেসক্লাবের সভাপতি এইচ এম দুলাল, সেন্ট পল্স উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মনীন্দ্র নাথ হালদার, ব্রাদার ভিক্টর ডি রোজার্ওি, মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষর কর্মচারি ইউনিয়নের অতিরিক্ত সাধারণ সম্পাদক মোঃ জামাল উদ্দিন চৌধুরী জাহিদ, আ্ওয়ামীলীগ নেতা টিপু সুলতান, প্রভাষক শ্যামা প্রসাদ সেন, ড. অপর্না অধিকারী, প্রভাষক প্রদীড অধিকারী প্রমূখ।।