বুয়েটে আন্দোলন সমাপ্তি ঘোষণাঃ ২৮ ডিসেম্বর থেকে পরীক্ষা

21

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধিঃ বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট) এর শিক্ষার্থীরা আন্দোলন সমাপ্তি ঘোষণা করেছে। আবরার হত্যার ঘটনায় দীর্ঘদিন ক্লাস-পরীক্ষা বন্ধ থাকার পর আগামী ২৮ ডিসেম্বর থেকে পরীক্ষা শুরু হচ্ছে।

গতকাল রাতে র‌্যাগিং এবং ছাত্র রাজনীতিতে জড়িত থাকলে কি শাস্তি হবে সেটা নীতিমালা আকারে প্রকাশ করে বুয়েট কর্তৃপক্ষ।

বুয়েটের ছাত্রকল্যাণ পরিচালক অধ্যাপক মিজানুর রহমান খান বলেন, ‘আমরা একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছিলাম। সেই কমিটির সুপারিশের ভিত্তিতে র‌্যাগিং এবং রাজনীতিতে জড়িত থাকলে কি শাস্তি হবে তার একটি নীতিমালা প্রণয়ন করেছি। র‌্যাগিংয়ের শাস্তিকে আমরা তিনটি ক্যাটাগরিতে ভাগ করেছি। র‌্যাগিংয়ের কারণে কারও মৃত্যু হলে জড়িতদের বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আজীবন বহিষ্কার করা হবে, কর্তৃপক্ষ মামলা করবে। এছাড়া র‌্যাগিংয়ের মাত্রা অনুসারে হল থেকে স্থায়ী বহিষ্কার, সাময়িক বহিষ্কারসহ সতর্ক করার বিধান করা হয়েছে।

আগামী ২৮ ডিসেম্বর থেকে শিক্ষার্থীরা ফাইনাল পরীক্ষায় বসবে । দাবি-দাওয়া পূরণ হওয়ার পর তারা পরীক্ষায় বসতে সম্মত হয়েছেন।

আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা আজ বিকেলে এক সংবাদ সম্মেলনে সকল দাবি-দাওয়া পূরণ হওয়াই শিক্ষার্থীরাও সন্তুষ্টি প্রকাশ করেছেন। সব দাবি পূরণ হয়েছে, আমরা সন্তুষ্ট। তারা আন্দোলন সমাপ্তি ঘোষণা করে বলেন, আশা করি বুয়েটে আবরার ফাহাদ হত্যার মতো ঘটনা আর ঘটবে না। শিক্ষার্থীরা একটি নিরাপদ ক্যাম্পাস পাবে।

উল্লেখ্য, গত ৬ অক্টোবর রাতে বুয়েটের শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদকে বিশ্ববিদ্যালয়ের শেরেবাংলা হলে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা পিটিয়ে হত্যা করে। সেই থেকে বুয়েটে শিক্ষার্থীরা ১০ দফা দাবিতে আন্দোলন শুরু করেন।