বিশ্বকাপ চলাকালে রংধনু পতাকা নিয়ে মাঠে

ডেস্ক রিপোর্ট: ২৮ নভেম্বর কাতার বিশ্বকাপে রংধুনু পতাকা ও স্লোগান সম্বলতি টি শার্ট পড়ে আকস্মিকভাবে মাঠে অনুপ্রবেশ করেছিল এক ব্যক্তি। টি শার্টের পেছনে লেখা ছিল ‘ইরানী নারীদের প্রতি সম্মান’ ।
পর্তুগাল ও উরুগুয়ের মধ্যকার গ্রুপ পর্বের দ্বিতীয়ার্ধের ম্যাচ চলাকালে তিনি মাঠে ঢুকে যান। নিরাপত্তা কর্মীরা ধরে নিয়ে যাবার আগে সেখানে আনুমানিক ৩০ সেকেন্ড অবস্থান করেন ওই ব্যক্তি। টি শার্টের সামনেও একটি স্লোগান লিখে রেখেছিলেন ওই ব্যক্তি। যেখানে লেখা ছিল ‘ ইউক্রেনকে বাঁচাও’।
পর্তুগাল তারকা রুবেন নেভেস বলেন, ‘বিশ্বকাপে কি ঘটেছে আমরা জানি। সুতরাং (মাঠে) এমনটা ঘটাই স্বাভাবিক। আমরা সবাই অবশ্যই তার সঙ্গে আছি। ইরানের সঙ্গে, ইরানের নারীদের সঙ্গেও আছি। সুতরাং আমি আশা করি মাঠে প্রবেশকারীর কিছু হবে না। কারণ আমরা সবাই তার বার্তা বুঝতে পেরেছি। আমি মনে করি গোটা বিশ^ও এটি বুঝতে পেরেছে।’
ওই অনুপ্রবেশকারীর পরিচয় পাওয়া গেছে, তার নাম মারিও ফেরি। তিনি ইতালির নাগরিক এবং সংবাদ সংস্থা এজিআই’র প্রতিনিধি। ২০১৪ সালের ব্রাজিল বিশ^কাপসহ এর আগেও তিনি একই ধরনের প্রতিবাদ করেছেন। যেখানে তিনি দারিদ্র্যে জর্জরিত শিশুদের বিষয় উত্থাপন করেছিলেন।
সমকামীদের অধিকার ও রংধনু পতাকা এবারের কাতার বিশ্বকাপের একটি গুরুত্বপুর্ন ইস্যুতে পরিণত হয়েছে। কারণ মধ্যপ্রাচ্যের মুসলমান অধ্যুসিত দেশটিতে সমকামীতা অবৈধ।