জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগেই সুন্দরবন বিনাশী রামপাল বিদ্যুৎ প্রকল্প বাতিলের দাবী

যুগবার্তা ডেস্কঃ তেল-গ্যাস-খনিজ সম্পদ ও বিদ্যুৎ-বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটির উদ্যোগে সুন্দরবন বিনাশী রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র বাতিল, জাতীয় সক্ষমতার বিকাশ এবং সকল অসম ও ক্ষতিকর চুক্তির পরিবর্তে জাতীয় কমিটির বিকল্প প্রস্তাবনা বাস্তয়নের দাবিতে সোমবার দেশব্যাপী সভা সমাবেশ ও বিক্ষোভ মিছিল কর্মসূচি পালিত হয়।

কর্মসূচির অংশ হিসেবে আজ ঢাকায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে জাতীয় কমিটি ঢাকা মহানগরের উদ্যোগে বিকেল সাড়ে ৪টায় বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

জাতীয় কমিটি ঢাকা মহানগর সমন্বয়কারী জুলফিকার আলীর সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন জাতীয় কমিটির সদস্য সচিব অধ্যাপক আনু মুহম্মদ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক এম.এম. আকাশ, জাতীয় কমিটি ঢাকা মহানগরের নেতা আকবর খান, খান আসাদুľামান মাসুম প্রমুখ।

সমাবেশে অধ্যাপক আনু মুহম্মদ বলেন, সুন্দরবনের পাশে রামপাল এবং রƒপপুরে পারমানবিক প্রকল্প যদি উনśয়ন প্রকল্পই হতো তাহলে সরকার কেন এত জুলুম চালাচ্ছে। তিনি বলেন, নির্বাচন ঘোষণার আগেই এইসব দেশবিনাশী প্রকল্প বাতিল করে অবিলম্বে জাতীয় কমিটির প্রস্তাবিত বিকল্প বিদ্যুৎ উৎপাদনের পরিকল্পনা বাস্তবায়নের দাবি জানান। অন্যথায়, বিক্ষোভ, লংমার্চসহ অনির্দিষ্টকালের জন্য অবস্থান কর্মসূচি দেওয়া হবে। তিনি দেশি-বিদেশি লুটেরাগোষ্ঠীর কাছে গ্যাস-বিদ্যুৎ খাত জিম্মি করা বন্ধ ও সকল ঘরে, শিল্প-কৃষিতে বিদ্যুৎ সমস্যার টেকসই সমাধানে জাতীয় কমিটির বিকল্প প্রস্তাবনা বাস্তবায়নের দাবি জানান।

অধ্যাপক এম.এম. আকাশ বলেন, ভারত তার নিকৃষ্ট মানের কয়লার বাজার ˆতরির উদ্দেশ্যে বাংলাদেশে কয়লা বিদ্যুৎ কেন্দ্র স্থাপনে আগ্রহী আর ভারতের আগ্রহের বিবেচনায় বাংলাদেশ সরকার সুন্দরবনকে ধ্বংস করার চক্রান্তে লিপ্ত। তিনি আরও বলেন, ইউনেস্কো কর্তৃক ঘোষিত বিশ্ব ঐতিহ্যের অংশ সুন্দরবন। কিন্তু সরকার এই বিষয়কে যদি গুরুত্ব দিত তাহলে এই প্রকল্প অনেক আগেই বাতিল হত।
সমাবেশ থেকে আগামী ১২ই মে সারাদেশে সুন্দরবন রক্ষার দাবিতে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করার আহবান জানান।