উন্নত ও আধুনিক প্রযুক্তি সংযোজন দ্বারা পাটশিল্প রক্ষা করুন–ওয়ার্কার্স পার্টি

6

ডেস্ক রিপোর্টঃ বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির পলিটব্যুরো সরকার কর্তৃক রাষ্ট্রায়ত্ব পাটকল বন্ধ করার ঘোষনায় বিস্ময় ও ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেছে, সকারের এই পদক্ষেপ আত্মঘাতি এবং সরকারের রাজনৈতিক প্রতিশ্রুতির চরম বরখেলাপ। পাটকল বন্ধ করার যে যুক্তি সরকারের পাটমন্ত্রি গণমাধ্যমে তুলে ধরছেন তা সত্যের অপলাপ। দির্ঘকাল ধরে পাট লুটপাটের দুর্নিতীকে আড়াল করে লোকসানী প্রতিষ্ঠান হিসেবে পাটকলকে চিহ্নিত করে তার দায় শ্রমিকদের উপর চাপিয়ে এর সমাপ্তি করছেন, যা পুর্ববর্তি বিএনপি-জামাত সরকারের বিরাষ্ট্রিয় করণ নীতি কৌশলের অনুসরণ মাত্র । পলিটব্যুরোর সভাার প্রস্তাবে রাষ্ট্রায়ত্ব সম্পদ লুটপাটকারী হাতে ছেড়ে না দিয়ে, পাটকলকে পুরোনো মেশিনের বদলে উনśত প্রযুক্তির আধুনিক যন্ত্রাংশ স্থাপন করে এই শিল্পকে লাভজনক প্রতিষ্ঠানে পরিনত করার আহবান জানান। এক্ষেত্রে শ্রমিক বিদায়ে কথিত ৬০০০ হাজার কেটি টাকার গোল্ডেনহ্যান্ডশেক-এর আমলাদের প্রস্তাবের বিপরিতে ১২০০ কোটি টাকায় পাটকলে আধুনিক ও উন্নত প্রযুক্তি সংযোজনের বিকল্প প্রস্তাব গ্রহন করে পাটকল ও শ্রমিক রক্ষার জন্য সরকারের প্রতি আহবান জানানো হয়। সভা আগামী ১লা জুলাই ২০২০ বুধবার পাটশিল্প রক্ষায় জাতীয় শ্রমিক ফেডারেশন আয়োজিত বিক্ষোভ সমাবেশ কর্মসুচির প্রতি সমর্থন ও সংহতি জানিয়েছে।
আজ ২৯ জুন সকাল ১১টায় এক ভার্চুয়াল কনফারেন্সে কমরেড রাশেদখান মেননের সভাপতিত্বে পলিটব্যুরোর জরুরী সভা অনুষ্ঠিত হয়।