উজিরপুরে অষ্টম শ্রেনীর ছাত্রীকে গনধর্ষন

কল্যাণ কুমার চন্দঃ বরিশাল জেলার উজিরপুর উপজেলার জল্লা ইউনিয়নের কুড়লিয়া গ্রামের এক দরিদ্র ভ্যানচালকের অষ্টম শ্রেনীতে পড়ুয়া কন্যাকে গনধর্ষন করেছে স্থানিয় মহিলা ইউপি সদস্য সবিতা রানীর বখাটে পূত্র সৈকত (১৯) ও তার সহযোগী দেবাশিষ বাড়ৈ (১৮) দেবাশিষ স্থানিয় মধু বাড়ৈর পূত্র । ৩১ মার্চ শনিবার দুপুরে নির্জন বাড়িতে ওই ছাত্রীকে ঘরে একা পেয়ে গনধর্ষনের এ ঘটনা ঘটানো হয়েছে বলে ছাত্রী ও তার মা অভিযোগ করেছেন । ধর্ষন ঘটনার পরে ধর্ষক সৈকত ও দেবাশিষ ধর্ষিতা ও তার মাকে হত্যার হমকী দিয়ে বীরদর্পে চলে যায়। ঘটনাটা ধামাচাপ দেওয়ার জন্য রবিবার বিকালে প্রভাবশালী মহিলা ইউপি সদস্য সবিতা রানী স্থানীয় প্রভাবশালী ও চিহ্নিত টাউট দালালদের সাথে নিয়েে একটি প্রহসনের শালিস বৈঠকের আয়োজন করে ।

উজিরপুর থানা পুলিশের তৎপরতায় ওই শালিশ বৈঠক ব্যার্থ হয়ে যায় এবং পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে টাউট দালাল শালিশ দারেরা পালিয়ে রক্ষা পায় । এ বিষয়ে রবিবার সন্ধ্যায় ওই ছাত্রীকে উদ্ধার করে সোমবার সকালে ধর্ষকদের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করে ছাত্রীকে ডাক্তারি পরিক্ষার জন্য বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালের ওয়ানষ্টপ ক্রাইসিস সেন্টার ( ও সি সি) তে পাঠানো হয়েছে । উজিরপুর থানার অফিসার ইনচার্য শিশির কুমার পাল জানিয়েছেন ঘটনা শুনে তিনি দ্রুত ছাত্রীকে উদ্ধার করেন এবং আইনগত পদক্ষেপ গ্রহন করেন,,আসামীদের গ্রেফতারের জন্য পুলিশি তৎপরতা অব্যাহত রয়েছে ।